আপনার জীবনের এক মাত্র লক্ষ হিসাবে SEO কেই বেছে নিতে পারেন। SEO তে ক্যারিয়ার গড়তে আগে SEO কি সেই বিষয়টা ভালোভাবে বুঝতে হবে। এবং SEO তে কাজের কি পরিমাণ সুযোগ আছে সে সম্পর্কে ভালো ধারণা থাকতে হবে। ক্যারিয়ার হিসেবে SEO হতে পারে আপনার এক মাত্র আয়ের উৎস।

যাই হোক SEO তে কি কি কাজের সুযোগ আছে বা SEO করে কোন কোন সেক্টরে কাজ করতে পারবেন সে সম্পর্কে আরও যথেষ্ঠ ধারণা থাকতে হবে।


আমরা প্রথমে SEO তে কি কি কাজের ক্ষেত্র আছে সে সম্পর্কে জেনে আসি।


আমাদের উচিত আমরা যে কাজই করি না কেন সেই কাজের মার্কেটপ্লেস এ কি কি কাজ আছে সে সম্পর্কে ভালো ধারণা রাখতে হবে।

দেখা গেলো একটা কাজ আপনি শিখলেন কিন্তু সেই কাজের তেমন গুরুত্ব নেই। তাহলে সেই কাজ শিখে আপনি কি করবেন বলেন??

যাই হোক একমাত্র ক্যারিয়ার গড়ার জন্যে SEO তে যে পরিমাণ কাজের সুযোগ বা ক্ষেত্র আছে তা আপনি অন্য কোন সেক্টরে পাবেন না।

ক্যারিয়ার হিসেবে এসইও তে কাজ করার জন্য সর্বপ্রথম এসইও এর কাজের ক্ষেত্র সমূহ সম্পর্কে জানতে হবে।

তাহলে চলুন এসইওতে কাজের ক্ষেত্র সম্পর্কে আগে জেনে আসি।


১. আউটসোর্সিং করে আয়


বর্তমানে বিভিন্ন ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস যেমন: fiverr.com, upwork.com, freelancer.com ইত্যাদি ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসের মাধ্যমে আপনি আপনার প্রোফাইল কে সুন্দর করে সাজিয়ে অনায়াসেই কাজ করতে পারেন। এখানে আপনি চুক্তিভিত্তিক বা ঘন্টা ভিত্তিক কাজ করে ক্যারিয়ার গড়তে পারেন খুব সহজে।

একজন বায়ার এখানে তার জব পোস্ট করে এবং বিভিন্ন ওয়ার্কার সেই সমস্ত জব নিয়ে কাজ করে বায়ারকে কে দেয়। অর্থাৎ এখানে কাজ করার জন্য দুই দল লোক থাকে একদল কাজ দেয় এবং অন্য দল সেই কাজগুলো নিয়ে কাজ প্রোভাইড করে।


২. ক্লায়েন্ট এর কাজ আয়


এছাড়া seo তে ক্যারিয়ার গড়ার জন্যে  আপনি ক্লায়েন্টের কাজ করে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। এইখানে কাজ করার জন্য আপনাকে কোন ফ্রীল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস এর মাধ্যমে কাজ নিতে হবে না।

এখানে আপনি সরাসরি বায়ার মা ক্লাইন্ট সংগ্রহ করবেন। তাদের সাথে আপনি যোগাযোগ করে সরাসরি কোনো মাধ্যম ছাড়া কাজ নিয়ে কাজ করতে পারবেন অনায়াসেই।

এতে করে এখানে বিভিন্ন ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে কাজ করার জন্য যে কমিশন দিতে হতো এখানে সেই কমিশন আপনাকে দিতে হবে না।

সরাসরি বায়ারের সাথে আপনি কথা বলবেন বায়ার আপনার সাথে যোগাযোগ করবে। এভাবেই মূলত আপনারা কাজ করবেন।


৩. জব সেক্টরে কাজের চাহিদা


SEO তে ক্যারিয়ার গড়ার জন্যে এই সেক্টরে আপনি বিভিন্ন কোম্পানি বা এজেন্সির হয়ে কাজ করতে পারেন।

আপনি শুধু bdjobs.com এ একবার প্রবেশ করেন দেখবেন সেখানে কি পরিমান কাজের চাহিদা রয়েছে শুধুমাত্র seo সেক্টরে।

এখানে প্রতিদিন নতুন নতুন জব পোস্ট করা হয়ে থাকে। চাকরিদাতা এখানে তার কোম্পানির জন্য কতজন লোক লাগবে? কি কি যোগ্যতা লাগবে?  সেগুলো লিখে জব পোস্ট করে।

জব গ্রহীতারা মূলত এখান থেকে বিভিন্ন কোম্পানিতে তাদের পছন্দ অনুযায়ী জবের জন্য এপ্লাই করে।

পছন্দ হওয়ার সাথে সাথে কোম্পানিগুলো বা এজেন্সিগুলো তাদেরকে হায়ার করে।


৪. চুক্তি ভিত্তিক কাজ করে আয়


এসইও এর কাজ মূলত একদিন বা দুইদিন করলাম আর কাজ শেষ হয়ে গেল এমন না। একটা ওয়েবসাইট প্রথম থেকে যতদিন ওয়েবসাইটটা টিকে থাকবে ততদিন পর্যন্ত আপনাকে এসইও করে যেতে হবে।

এখন বুঝতে পারছেন একটা ওয়েবসাইট সারা জীবন SEO করতে হবে।

তার মানে বুঝতেই পারছেন এই সেক্টরে আপনি একবার যদি একটা কোম্পানিতে ঢোকেন একবার যদি একটা কাজ নিয়ে আপনি কাজ করতে থাকেন।

তাহলে আপনি দিনের পর দিন, মাসের পর মাস, বছরের পর বছর আপনি একটা ওয়েবসাইট নিয়ে কাজ করতে পারবেন।

এখানে বিভিন্ন কোম্পানির বিভিন্ন ব্যক্তি যারা আছেন তারা মূলত চুক্তিভিত্তিক ভাবেও আপনাকে seo তে কাজ দিয়ে থাকেন।

দেখা গেল একটি কাজ আপনাকে করতে দেয়া হল এক বছরের একটা চুক্তি এর মাধ্যমে। আপনি চাইলে একসাথে দুইটা তিনটা বা চারটা কাজ নিয়েও আপনি চুক্তিভিত্তিক কাজ করতে পারেন।

এতে করে আপনার আয়ের পরিমান আরো দ্বিগুন বাড়বে। এবং আপনি এখান থেকে কাজ নিয়ে এজেন্সি খুলেও আপনি কাজ করতে পারবেন।


৫. গুগল অ্যাডসেন্স করে আয়


আপনি SEO তে ক্যারিয়ার গড়তে চাইলে আপনার একটা ইনফরমেশন রিলেটেড একটা ওয়েবসাইট বানান এবং সেখানে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে ইনফরমেশন শেয়ার করতে থাকেন। 

একটা সময় যখন দেখবেন যে আপনার এই ওয়েবসাইটে মোটামুটি লেভেলের ভিজিটর প্রবেশ করছে। তখন আপনি চাইলে গুগল এডসেন্সের মাধ্যমে আপনার ওয়েবসাইটে অ্যাড নিয়ে আপনি অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

ধরেন আপনার ওয়েবসাইটে par day ভিজিটর 400 বা 500। তাহলে আপনাকে আর কিছুই করতে হবেনা ভিজিটর অটোমেটিক আপনার সাইটে ঢুকবে এবং তারা বিভিন্ন অ্যাডে ক্লিক করবে।

এতে করে আপনার প্রতিদিন কোন প্রকার পরিশ্রম না করে, কোন কাজ না করে 4-500 ভিজিটর দিয়েই আপনি প্রতিদিন 25 থেকে 30 ডলার অনায়াসে আয় করতে পারবেন।

আর সবচেয়ে মজার ব্যাপার হলো এখানে যখন আপনি কাজ করবেন তখন আপনাকে তেমন একটা পরিশ্রম করতে হবে না।

এইটার প্রতি তেমন একটা সময় আপনাকে দিতে হবে না আপনি শুধু মাঝে মাঝে মাঝে হয়ত 4 থেকে 5 টা পোস্ট করলেন আপনার কাজ শেষ আর দুচারটা এসইও করলেন এখানে-সেখানে লিংক শেয়ার করলেন ব্যস তাতেই হয়ে যাবে।

আর এইখান থেকে আপনি একদমই লাইফ টাইম এর জন্য ইনকাম করতে পারবেন।


৬. অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করে আয়


SEO তে ক্যারিয়ার গড়ার জন্যে আপনি এই সেক্টরে বর্তমানে কাজের প্রচুর পরিমাণ চাহিদা রয়েছে। আমি অনেকে দেখেছি যে, এই সেক্টরে একটি ওয়েবসাইটকে দাঁড় করিয়ে অনেকেই অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং করছেন।

এই সেক্টরে কাজ করার জন্য আপনাকে প্রচুর পরিমাণ লিংক বিল্ডিং করতে হবে না এখানে শুধু পোস্ট করবেন।

অর্থাৎ ব্লগপোস্ট এবং মাঝে মাঝে দু’চারটা করে গেস্ট পোস্ট শেয়ার করতে হবে। ব্যস তাহলেই কাজ শেষ। প্রতিমাসে কম করে হলেও 500 বা 1000 ডলার এখান থেকে ইনকাম করা কোন ব্যাপার না।


৭. নিজের বিজনেস বিল্ডআপ


এই সেক্টরে আপনি অনলাইনে যে কোন বিজনেস করে আপনি স্বাবলম্বী হতে পারেন।

যেমন ধরেন আপনি একটা গার্মেন্টস এর দোকান দিয়েছেন এখন মানুষজন কিন্তু বর্তমানে প্রচুর পরিমাণ অনলাইনে কেনাকাটা করে।

আপনি যদি আপনার একটি ওয়েবসাইট তৈরি করেন এবং সেখানে টি-শার্ট বা বিভিন্ন প্রোডাক্ট এর প্রাইস টা দিয়ে তারপর এসইও শুরু করেন তাহলে দেখবেন খুব সহজেই আপনি এখান থেকে সেল করতে পারবেন অনেক বেশি।


এসইও শিখতে করো সময় লাগবে??


এসইও শিখতে অন্য অন্য কাজের তুলনায় আপনি অনেক কম সময়ে SEO শিখতে পারবেন। আপনি চাইলেই মাত্র 2 থেকে 3 মাসের মধ্যেই কাজ শিখে ফেলতে পারবেন।

আর SEO তে আপনি যখন কাজ করতে যাবেন তখন দেখবেন গুগল অ্যালগরিদম প্রতি বসর 2 বার করে আপডেট নিয়ে আসে।

এখানে আমি যে বলছি প্রতি বসর 2 বার। গুগল প্রতিদিন তাদের অ্যালগরিদম চেঞ্জ করে কিন্তু বছরে 2 বার তাদের মেজর আপডেট আমাদের সামনে প্রকাশ করে।

আর অনেক আপডেট আছে সেটা হয়তো আমরা অনেকেই জানি না।

যাই হোক মূল প্রসঙ্গে ফিরে যাই।

আপনি একবার কাজ শিখার পরে প্রতিবার আপডেটের জন্যে আপনাকে আর নতুন করে কাজ শিখতে হবে না।

গুগল আপডেট আনলে আপনি সেটা নিজে থেকেই খুব সহজেই করে ফেলতে পারবেন। আপনার ভালো কাজ জানা থাকলেই আপনি সহজেই আপডেট বুঝতে পারবেন।


কাজ শিখতে কি কোডিং জানতে হবে??


অনেকই বলে থাকেন কোডিং নলেজ না হলে নাকি SEO করা যাবে না। আমি বলবো ভাই কথাটা সত্যিই তবে এমন কোডিং ও জানতে হবে না যেটা না জানলে আপনি SEO তে কাজ করতে পারবেন না।

আমি বলবো আপনি যদি ওয়ার্ডপ্রেস নিয়ে কাজ করেন তাহলে আপনাকে কোনো প্রকার কোডিং না জেনেও আপনি কাজ করতে পারবেন খুব সহজেই।

কিন্তু যদি আপনি HTML বা php বা অন্য কোনো platfrom নিয়ে কাজ করেন তাহলে আপনাকে একটু কোডিং এর নলেজ থাকতে হবে। সেটাও আবার খুব নগণ্য।

যেমন ধরেন meta description, meta title, meta Author, etc আবার scema সেটাপ এর জন্যে কিছু কোড ব্যাবহার করা লাগতে পারে।

তবে এটা খুব সীমিত। যা আপনাকে এক বার দেখিয়া দিলে এই কাজ করতে পারবেন খুব সহজেই।

আজ অনেক কথা বললাম। আপনার যদি কোথায় কোনো বুঝতে প্রবলেম হয়। তাহলে আপনি আমাদের Tell me your opinion এই ঠিকানায় গিয়ে আপনার প্রশ্ন করে আসতে পারেন।

আমাদের টিম অতি সত্বর আপনার প্রশ্নের উত্তর দিতে প্রস্তুত।

যাই হোক আজ এ পর্যন্তই। দেখা হবে নতুন কোনো পর্বে। সেই পর্যন্ত সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন। সবাইকে আগামী পর্বের আমন্ত্রণ জানিয়ে আজ এখানেই বিদায় নিচ্ছি আল্লাহ হাফিজ।